গাইবান্ধাপলাশবাড়ী

পলাশবাড়ীতে ইটের পরিমাপ কম পাওয়ায় দুই ইটভাটাকে জরিমানা

বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ড অনুযায়ী ইটের পরিমাপ কম পাওয়ায় গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় দুটি ইটভাটাকে এক লাখ ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

শুক্রবার বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস এন্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশনের (বিএসটিআই) রংপুর বিভাগীয় কার্যালয়ের উপপরিচালক (পদার্থ) প্রকৌ. মো. আব্দুর রশিদ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, খাদ্যদ্রব্য ও পণ্যসামগ্রীতে ভেজালরোধ এবং ওজন ও পরিমাপে সঠিকতা নিশ্চিতকরণের লক্ষে বিএসটিআই নিয়মিত কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার দুপুর হতে সন্ধ্যা পর্যন্ত রংপুর বিভাগীয় বিএসটিআই কার্যালয়ের উদ্যোগে গাইবান্ধার বিভিন্ন এলাকায় জেলা প্রশাসনের সহায়তায় ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অভিযান পরিচালনা করা হয়। বিডিএস অনুযায়ী ইটের সঠিক পরিমাপ হচ্ছে দৈর্ঘ্য ২৪ সেন্টিমিটার, প্রস্থ ১১.৫ সেন্টিমিটার ও উচ্চতা ৭ সেন্টিমিটার। কিন্তু অভিযান পরিচালনাকালে বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ড (বিডিএস-২০৮) অনুযায়ী ইট (ক্লে-ব্রিকস) এর পরিমাপ সঠিক না পাওয়ায় বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস এন্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন আইন- ২০১৮ এর সংশ্লিষ্ট ধারায় দুটি ইটভাটাকে জরিমানা করা হয়। ইটভাটা দুটি হচ্ছে পলাশবাড়ীর ঢোলভাঙ্গা এলাকার মেসার্স টিপিএল ব্রিকসকে (ব্রান্ড-টিপিএল) ৮০ হাজার টাকা ও একই এলাকায় মেসার্স জনতা ব্রিকসকে (ব্রান্ড-জে/বি) ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। অভিযান পরিচালনা করেন গাইবান্ধা জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট এস এম ফয়েজ উদ্দিন ও লোকমান হোসেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন রংপুর বিএসটিআইয়ের ফিল্ড অফিসার (সিএম) মো. দেলোয়ার হোসেন। আগামীতে জেলা প্রশাসন ও পুলিশের সহায়তায় বিএসটিআইয়ের এরূপ ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চলমান থাকবে বলেও উল্লেখ করা হয় ওই প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে।

Back to top button